বাংলাদেশ পর্যটন করপোরেশন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ৮ সেপ্টেম্বর ২০২০

জামালপুর জেলা

 

ক) ধর্মীয়ঃ পর্যটন আকর্ষণঃ


১. শাহ জামাল (রহ:) মাজারঃ
জামালপুর শহরের অন্যতম আকর্ষণ হযরত শাহ জামাল (রহঃ) এর মাজার। কথিত আছে যে, ধর্ম প্রচারক শাহ জামাল (রহঃ) এর নামানুসারে জামালপুর জেলার নামকরণ করা হয়। মোঘল সম্রাট আকবরের রাজত্বকালে ১৫৪২ থেকে ১৬০৫ খ্রিস্টাব্দের মধ্যে ইসলাম ধর্ম প্রচারের জন্য হযরত শাহ জামাল (রহঃ) এখানে আসেন। জামালপুর শহরের উত্তর-পশ্চিম দিকে তাঁর মাজার অবস্থিত। বাংলার প্রাকৃতিক শোভা সৌন্দর্য্যে বিমুগ্ধ হয়ে হযরত শাহ জমাল (রহঃ) ব্রক্ষ্রপুত্র নদের পশ্চিম তীরবর্তী জামালপুরে আস্তানা পাতেন এবং খোদা প্রেমে মুগ্ধ হন। দিল্লীর সম্রাট হযরত শাহ জামাল (রহঃ) এর অলৌকিক কার‌্যাবলী ও ঐশী শক্তি সর্ম্পকে জ্ঞাত হয়ে জামালপুরের জমি ও সনদ তাঁকে উপহার দেন। প্রতিবছর শীত মৌসুমে এই দরগায় বহু ভক্ত এসে উপস্থিত হন। তখন এখানে মেলা বসে।


২. দয়াময়ী মন্দিরঃ
জামালপুর মূলত জমিদার ও তালুকদার প্রধান এলাকা। এ জেলায় অবস্থিত ঐতিহ্যবাহী দয়াময়ী মন্দির।

 

খ) প্রাকৃতিক: পর্যটন আকর্ষণ

১. গারো পাহাড়ঃ

ভারতের পশ্চিম মেঘালয়ের গারো পাহাড়ের দক্ষিণমুখী সম্প্রসারিত পাহাড়শ্রেণী এগারো পাহাড়। বৃহত্তর ময়মনসিংহ জেলার উত্তর সীমান্ত অঞ্চল জুড়ে এটি পশ্চিম কুরি বিল থেকে পূর্বে ভোগাই নদী পর্যন্ত বিস্তৃত। গারো পাহাড়ে গারো, হাজং উপজাতিরা বসবাস করে। গারো পাহাড়ে গহীন অরণ্য, স্রোতস্বিনী ঝরণা, জলাশয়, গন্ডার, বাঘ, হাতি, বন্য মহিষ ইত্যাদি বাস করে। গারো পাহাড়ের মধ্যস্থল দিয়ে বৃহত্তম নদী সিমসং নদী প্রবাহিত। নদীর উভয় তীরে গারো উপজাতি গ্রাম বিস্তৃত।


Share with :

Facebook Facebook